অবশেষে গ্রেপ্তার হলেন মিন্নি রিফাত হত্যায় জড়িত থাকায় সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার


অবশেষে গ্রেফতার হলেন আয়শা সিদ্দিকা মিন্নি রিফাত হত্যার সাথে জড়িত থাকায় আজ রাত 9 টা 10 মিনিটে গ্রেফতার করা হয় জানিয়েছেন সংবাদ সম্মেলনে পুলিশ সুপার।


 এর আগে বরগুনায় রিফাত হত্যা মামলার প্রধান সাক্ষী তার স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নিকে জেলা পুলিশ কার্যালয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়েছে মামলার আসামিদের সোমবার আদালতে হাজির করা হলে তাদের জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ ৩১ জুলাই শুনানির তারিখ নির্ধারণ করা হয়। বরগুনার কলেজ রোডে ২৫ শে জুন রিফাত শরীফ স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকী মিন্নির সামনে কুপিয়ে হত্যা করে সন্ত্রাসীরা।


 ঘটনার পর দায়ীদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে দেশজুড়ে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে হত্যা মামলা দায়ের করেন রিফাতের বাবা সন্দেহভাজন হিসাবে ১৩ জনকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ঘটনার সাথে জড়িত স্বীকার করে জবানবন্দি দিয়েছেন নয় আসামি কিছুদিনের মধ্যেই পরিস্থিতি ঘোলাটে হয়ে ওঠে রিফাতের বাবা পুত্রবধূ মিন্নিকেও গ্রেফতারের দাবি জানান। মিন্নিও সংবাদ সম্মেলন করে তার বক্তব্য তুলে ধরেন।


 সোমবার গ্রেফতার ১৩ জনকে হাজির করা হলে ৩১ জুলাই পরবর্তী শুনানির তারিখ নির্ধারণ করে আসামিদের আবারো জেলহাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন আদালত। মঙ্গলবার সকালে রিফাত হত্যা মামলার প্রধান সাক্ষী রিফাতে স্ত্রী আয়েশা সিদ্দিকা মিন্নিকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ লাইনে আনা হয়ে। রিফাত হত্যার ঘটনায় মিন্নির জবানবন্দি নিতে থাকে পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে আনা হয়েছে বলে জানায় পুলিশ।

No comments

Powered by Blogger.